Recent Post

রক্তনালীর ব্লক বা এনোরিজম টিউমারের চিকিৎসা, ছবি, লক্ষণ ও রেপার্টরি।

রক্তনালীর ব্লক বা এনোরিজমঃ

হৃদপিণ্ডের ধমনির ভিতরের দিকে Aneurism নামক এক প্রকার টিউমার হয়ে রক্ত চলাচলের পথকে ধীরে ধীরে সরু করে দেয় যার ফলে দেহে রক্ত সঞ্চালনে সমস্যা শুরু হয় এবং মস্তিষ্কে রক্তের সাথে অক্সিজেন প্রবাহ কমে আসে। এর কারণে হার্ট অ্যাটাক হয়ে রোগীর মৃত্যুও হতে পারে। এ রোগকে করোনারি আর্টারি ডিজিজ বা রক্তনালীর ব্লক বলে। এ রোগটি মূলত অতিরিক্ত কলেস্টোরল এবং ফ্যাটি প্লাকের কারণে হয়ে থাকে। নিঃসন্দেহে এটি অনেক মারাত্মক একটি সমস্যা।

মূল থেকে পুর্নাঙ্গ ভাবে রোগ আরোগ্য করা হোমিওপ্যাথির বলিষ্ঠ দাবি ।

সূচি
1. টিউমার
2. ব্রেস্ট টিউমার।
3. হাত ও পায়ের টিউমার।
4. অস্থি বা হাড়ের টিউমার।
5. আভ্যন্তরীণ অঙ্গের টিউমার।
6. পুরুষ ও স্ত্রী যননাঙ্গের টিউমার।
7. রক্তনালীর ব্লক বা এনোরিজম টিউমার।
8. ব্রেইন, মাথা, নাক, কান, চোখ, মুখ ও গলার টিউমার।

 

লক্ষণঃ

১) শ্বাসপ্রশ্বাসে কষ্ট:

সামান্য হাঁটা চলা, সিঁড়ি দিয়ে উঠা, অল্প কাজ করে হাঁপিয়ে উঠা, ছোটো ছোটো নিঃশ্বাস নেয়া এবং নিঃশ্বাস নিতে সমস্যা হওয়া ধমনীতে ব্লক হওয়ার প্রধান লক্ষণ।

২) দ্রুত বা অনিয়মিত হৃদস্পন্দনঃ

হৃদপিণ্ডের ধমনীতে ব্লকের সৃষ্টি হলে রক্ত সঞ্চালনে বাঁধা তৈরি হয়। এর ফলে পর্যাপ্ত রক্ত সঞ্চালনের জন্য হৃদপিণ্ড দ্রুত পাম্প হতে থাকে। ব্লক থাকার কারণে সঠিকভাবে রক্ত পাম্প করতে পারে না, এতে অনিয়মিত হৃৎস্পন্দনের সৃষ্টি হয়। যার ফলে বোকে ব্যথা ও মাথা ঘোরানো অনুভূত হয়।

৩) এনজাইনা পেকটোরিস বা বোকে ব্যথা:

এনজাইনা পেকটোরিস, ধমনী ব্লক হওয়ার প্রধান লক্ষণগুলোর মধ্যে একটি। এতে বোকে ভার বোধ, বোকে চেপে ধরা অনুভূতি, জ্বালাপোড়া, বোধশক্তি হারিয়ে ফেলা। এ ব্যথা পরবর্তীতে বাহু, পিঠ, ঘাড়, গলা, পাকস্থলী ও চোয়ালের দিকে ছড়িয়ে পড়তে থাকে।

৪) মাথা ঘোরানো ও দুর্বলতা:

ধমনীতে ব্লক তৈরি হলে পর্যাপ্ত পরিমাণ অক্সিজেন আমাদের মস্তিষ্কে পৌছতে পারে না। এর ফলে মাথা ঘোরানো, মাথা হালকা বোধ, অজ্ঞান হওয়া, অতিরিক্ত দুর্বলতা,  উদ্বেগ ও অস্থিরতা দেখা দিতে পারে।

৫) বমি ভাব:

অনেক বেশি বমি ভাব ও পেটের নিচের দিকে ব্যথা অনুভূত হতে পারে।

সফল রোগীর ভিডিও প্রমাণ

চিকিৎসা:

হোমিওপ্যাথি পদ্ধতিতে এ রোগের সফল ও কার্যকরী চিকিৎসা রয়েছে। তবে অবশ্যই নিম্নের সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে।

  • ১) ইমার্জেন্সি অবস্থাতে রোগীকে যান্ত্রিক ও কেমিক্যাল চিকিৎসার জন্য হসপিটালে প্রেরণ করতে হবে।
  • ২) রোগী এলোপ্যাথি চিকিৎসা নিয়ে আসলে, হোমিওপ্যাথি ঔষধ দেয়ার পাশাপাশি এলোপ্যাথি ঔষধ চালিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দিতে হবে এবং রোগীর উন্নতি বিবেচনা করে আস্তে আস্তে এলোপ্যাথি ঔষধ বন্ধ করতে হবে। তা না হলে রোগীর অবস্থা মারাত্মক হতে পারে।

লক্ষণ ও তার রেপার্টরি রুব্রিকঃ

হোমিওপ্যাথিতে রক্তনালীর ব্লক বা এনোরিজমের চিকিৎসার জন্য নিচে দেয়া ২৮ টি লক্ষণ ও তার রেপার্টরি রুব্রিক অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। যারা চিকিৎসা নিতে চান তারা এ লক্ষণ সমূহের সাথে কোনটা আপনার রোগের সাথে মিলে তা ডাক্তারকে স্পষ্ট করে জানালে চিকিৎসা পেতে সহজ হবে। (লক্ষণ সমূহের গাইডলাইন-নির্দেশনা পোস্টের নিচে দেয়া আছে)

ANEURISM

 

১. ধমনির টিউমার – ANEURISM, (44)  2 acon, 1 ambr, 1 arn, 1 ars, 1 ars-i, 1 aspar, 2 aur, 2 bar-c, 2 bar-m, 2 bell, 3 CACT, 3 CALC, 1 calc-f, 1 calc-p, 2 calen, 1 cann-s, 1 carb-an, 2 carb-v, 1 caust, 3 CUPR, 2 dig, 1 ferr, 2 ferr-p, 1 glon, 1 graph, 1 guai, 1 iod, 1 kali-c, 2 kali-i, 1 kalm, 2 lach, 1 lith, 2 lyc, 1 lycps, 1 morph, 1 nat-m, 1 plb, 1 puls, 1 ran-s, 1 sec, 3 SPIG, 2 spong, 2 sulph, 1 thuj

 

Blood Vessels

 

২. রক্তাধারে টিউমার – BLOOD vessels, tumors, of (1)  (বেরিকেট ( ) দেয়া স্থানের সংখ্যা, ঔষধ সংখ্যা হিসাবে বিবেচ্য)

 

 

Capillary Aneurism

 

৩. ধমনির টিউমার, কেপিলারি – ANEURISM, capillary (3)

 

 

Abdominal aneurism

 

৪. ধমনির টিউমার, উদরে – ANEURISM, abdomen (2)

 

 

 

 

 

Anastomosis

 

৫. ধমনির টিউমার, শীরা ছিন্ন হওয়া দ্বারা – ANEURISM, anastomosis, by (10)

৬. ধমনির টিউমার, শীরা ছিন্ন হওয়ার কারনে – ANEURISM, anastomosis, by anastomosis, from (1) 

 

aorta

৭. ধমনির টিউমার, বাম দিকের প্রধান ধমনির – ANEURISM, aorta (3)

৮. ধমনির টিউমার, বাম দিকের প্রধান ধমনির ধনুকাকৃতি স্থানে – ANEURISM, aorta arch of (1)

৯. ধমনির টিউমার, বাম দিকের প্রধান ধমনির নিচের দিকে – ANEURISM, aorta descending, of (2)

১০. ধমনির অর্বুদের সামান্য ক্ষত হতে অত্যধিক রক্তপাত – ANEURISM, bleeding violently from least wound (1)

১১. ধমনির টিউমার চেপ্টাপ্রকৃতির – ANEURISM, flat (1)

 

Heart ventricular aneurysm views

 

১২. ধমনির টিউমার হৃৎপিন্ডের – ANEURISM, heart, of (2)

১৩. ধমনির টিউমার হৃৎপিন্ডের বড় রক্তাধারের নিকটে – ANEURISM, heart, of large vessels near (1)

১৪. ধমনির টিউমার ক্যারোটিড ও এওর্টার বিস্তীর্ন অংশে – ANEURISM, left carotid and aorta, dilatation of (1)

১৫. ধমনির টিউমার, বেদনা যুক্ত – ANEURISM, pains, of (3)

 

Brain aneurysm, artwork

 

১৬. ধমনির টিউমার, গোলাকৃতির – ANEURISM, round (1)

১৭. ধমনির টিউমার, ছোট ছোট, সমস্ত দেহে – ANEURISM, small, all over body (1)

১৮. ধমনির টিউমার, সিফিলিস জাত – ANEURISM, syphilitic (2)

 

Vagus-nerve

 

১৯. ধমনির টিউমার, ভেনাস এবং তার শাখা প্রশাখা, চাপে একত্রিত হয় – ANEURISM, vagus and its branches, involving pressure on (1)

 

From to

 

২.০. রক্তাধারের কৌশিক নালির টিউমার – BLOOD vessels, capillaries, aneurism (2)

২১. রক্তাধারের কৌশিক নালির সংকোচন সহ টিউমার – BLOOD vessels, capillaries, aneurism contraction, causes (1) 

২২. রক্তাধারের কৌশিক নালির টিউমার এনযার্ড প্রকৃতির, তার সহিত রক্তযুক্ত জৈব তরল পদার্থের স্রাব – BLOOD vessels, capillaries, aneurism engorged with discharge of bloody serum (1)

২৩. রক্তাধারের কৌশিক নালির টিউমার ইরিথিযম প্রকৃতির, ক্ষত আছে অথবা রক্ত ও চর্বি স্রাব নির্গত হয়না BLOOD vessels, capillaries, aneurism erethism, following wounds with or without hemorrhages and grea (2)

২৪. রক্তাধারের কৌশিক নালির টিউমার, চামড়ার উপর চাপলে ধিরে ধিরে পুর্ন হয়, আরক্তজ্বরের সময়, – BLOOD vessels, capillaries, aneurism fill slowly after pressure on skin, in scarlatina (1)

২৫. রক্তাধারের কৌশিক নালির টিউমার থেকে, রক্তের মত কালচে বস্তু চুইয়ে পরে – BLOOD vessels, capillaries, aneurism hemorrhage, disposition to, oozing of dark, thin blood (1)

২৬. রক্তাধারের কৌশিক নালির টিউমার, সুঁই দ্বারা আঘাত প্রাপ্ত – BLOOD vessels, capillaries, aneurism injected (1)

২৭. রক্তাধারের কৌশিক নালির টিউমার, দেখতে জালের মত – BLOOD vessels, capillaries, aneurism net like appearance (1)

২৮. মেয়েলী ধাতু ব্যাক্তির ধমনির টিউমার – WOMEN Constitution, aneurism (3)

 

লক্ষণ সমূহের তথ্য সূত্রঃ মার্ফি রেপার্টরি।

 

 

পাঠকদের জন্য নির্দেশনা

১. বেরিকেট ( ) দেয়া স্থানের সংখ্যা, ঔষধ সংখ্যা হিসাবে বিবেচ্য।
২. ঔষধের অপপ্রয়োগ হতে পারে, এ কাড়নে অনেক স্থানে ঔষধের নাম দেয়া হয়নি।
৩. ডাক্তার গন প্রদেয় ইংরেজি রুব্রিক দিয়ে রেপার্টরি থেকে ঔষধের নাম সমূহ খুঁজে পাবেন।
৪. যে ঔষধের নামের পার্শে ৩ লিখা আছে তা প্রথম গ্রেড, ২ হলে দ্বিতীয় গ্রেড, ১ হলে তৃতীয় গ্রেড এর ঔষধ বুঝতে হবে।
৫. সফল চিকিৎসা পেতে অথবা চিকিৎসা দিতে লিংকে ক্লিক করে বর্ণনাটি পড়ুন।

 

 

About The Author

M.D (AMCC, Kolkata, India) M.M (B.M.E.B) D.H.M.S (B.H.B)

Related posts

Optimization WordPress Plugins & Solutions by W3 EDGE